পরকীয়ায় জড়িত নারীরা যে প্রাণী বেশি পোষেন

একজনের সঙ্গে সম্পর্কে থাকাকালীন অন্যের সঙ্গে সম্পর্কে জড়ানোর নামই পরকীয়া। আমাদের সমাজে পরকীয়া নিয়ে কৌতূহলের শেষ নেই। সিনেমা-সাহিত্য-বাস্তব সব জায়গায় পরকীয়া নিয়ে উত্তেজনা তুঙ্গে। নৈতিকতা নিয়ে বিতর্ক যতটা, ততটাই আকর্ষণ নিষিদ্ধ (সামাজিক দিকে থেকে) সম্পর্কের প্রতি। কিন্তু পরকীয়া ভালো না খারাপ সেই বিতর্ককে না ঢুকে নজর দেয়া যাক মজার একটি সমীক্ষায়।
একটি ডেটিং ওয়েবসাইটের সাম্প্রতিক এক সমীক্ষা বলছে, পরকীয়ায় জড়িত নারীদের মধ্যে বিড়াল পোষার প্রবণতা সর্বোচ্চ।

আমেরিকার একটি জনপ্রিয় ডেটিং ওয়েবসাইট সম্প্রতি পরকীয়ায় জড়িত ১ হাজার ৪০০ নারীর মধ্যে এই সমীক্ষা চালায়। এই নারীদের বয়স, পেশা বা অন্য কোনো আর্থ-সামাজিক তথ্য গোপনই রাখা হয়েছে।

সমীক্ষায় জানতে চাওয়া হয়, যে নারীরা পরকীয়া করছেন তারা কোন প্রাণী পোষেন? সমীক্ষার ফল বলছে, পরকীয়াতে জড়িত নারীদের মধ্যে সবচেয়ে বিড়াল পোষার প্রবণতা বেশি। সমীক্ষায় অংশ নেয়া নারীদের মধ্যে ২২ শতাংশ নারী বিড়াল পোষার কথা জানিয়েছেন। তবে শুধু বিড়াল নয়, বিড়াল ছাড়াও হরেক রকম প্রাণী পোষার আগ্রহ দেখা গিয়েছে অংশগ্রহণকারী নারীদের মধ্যে। দেখে নিন সেই তালিকা-
* বিড়াল: ২২ শতাংশ
* মাছ: ১৯ শতাংশ
* হ্যামস্টার: ১৭ শতাংশ
* গিনি পিগ: ১৬ শতাংশ
* টিকটিকি: ১৫ শতাংশ
* কচ্ছপ: ১৪ শতাংশ
* পাখি: ১৩ শতাংশ
* কুকুর: ১২ শতাংশ
* সাপ: ৫ শতাংশ
* খরগোশ: ২ শতাংশ

তবে এই ধরনের সমীক্ষার আদৌ কোনো বৈজ্ঞানিক ভিত্তি আছে কি না তা নিয়ে প্রশ্ন থেকে যায়। কাজেই একে বৈজ্ঞানিক গবেষণা না ভেবে নিছক হাস্যরসের উপাদান হিসেবে দেখাই বিচক্ষণতার পরিচয় হবে।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা।

About admin

Check Also

সম্পর্কের পর বাতি জ্বালাতেই দেখেন অন্য কেউ!