বলিউডে জয়া আহসান, অভিনয় করবেন হিন্দি সিনেমায়

দুই বাংলার অন্যতম জনপ্রিয় অভিনেত্রী জয়া আহসান। বর্তমানে দেশীয় চলচিত্রের সাথে টলিউড ইন্ডাষ্ট্রি দাপিয়ে বেড়াচ্ছেন এই অভিনেত্রী। এছাড়া ভারতে প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে ‘ফিল্ম ফেয়ার অ্যাওয়ার্ড’পেয়েছেন তিনি।

তবে এবার দুই বাংলা জয় করার পর বলিউডে যাত্রা শুরু হচ্ছে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার জয়ী এই তারকার। ছবিটির নাম ‘করক সিং’। পরিচালক অনিরুদ্ধ রায় চৌধুরী নির্মাণ করবেন এটি। এতে জয়ার সঙ্গে দেখা যাবে বলিউড অভিনেতা পঙ্কজ ত্রিপাঠীকে। সম্প্রতি সিনেমাটির ব্যবস্থপনা দায়িত্বশীলের সূত্রে আনন্দবাজার প্রকাশ করেছে এই খবর।

ভারতীয় একাধিক গনমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, ছবিটিতে জয়া-পঙ্কজ ত্রিপাঠি ছাড়া আরও অভিনয় করবেন ‘দিল বেচারা’ খ্যাত অভিনেত্রী সানজানা সাংভি। পশ্চিমবঙ্গের বেশ কয়েকজন অভিনয়শিল্পীকে দেখা যাবে এই সিনেমায়।

‘করক সিং’ চলচিত্রটি মূলত আর্থিক কেলেঙ্কারির ঘটনা নিয়ে নির্মিত হবে। তবে সিনেমার গল্প বাস্তব জীবন থেকে অনুপ্রাণিত কি না, তা নিশ্চিত ভাবে এখনই বলা যাচ্ছে না। এর শুটিং হবে কলকাতা ও মুম্বাইতে।শোনা গেছে, এই সিনেমায় প্রয়াত অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের অভিনয় করার কথা ছিল।

১৪ বছর আগের বিয়ের শাড়িতে ‘নতুন’ রূপে রুনা

সম্প্রতি ৩৯ কেজি ওজন কমিয়ে ঝরঝরে চেহারা নিয়ে আলোচনায় এসেছেন অভিনেত্রী রুনা খান। তার এই নতুন লুক ভক্ত-শুভাকাঙ্ক্ষীরা বেশ ভালো ভাবেই গ্রহণ করেছেন। এ যাত্রায় স্বামী ও সন্তান বেশ অনুপ্রেরণা জুগিয়েছে বলে জানিয়েছেন রুনা। সোমবার (২৮ নভেম্বর) সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে রুনা নতুন কিছু ছবি পোস্ট করেছেন। ১৪ বছর আগের বিয়ের শাড়িতে হাজির হয়ে ভক্ত-শুভাকাঙ্ক্ষীদের চমকে দিয়েছেন অভিনেত্রী।

গতকাল (সোমবার) সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে রুনা নতুন কিছু ছবি পোস্ট করেছেন। ছবি গুলোতে রুনা খান তার স্বামীকে মেনশন করে লিখেছেন, ‘এশন ওয়াহিদের সাথে পাগলা ঝড়ো হাওয়ার মতো তথাকথিত যে বিবাহটি হয়েছিল প্রায় বছর ১৪ বছর আগে শাড়িখানা সেই বিয়ের।’

জানা গেছে, রেড বিউটি স্যালনের আয়োজনে ১৪ বছর আগের বিয়ের শাড়িতে রাঙা বৌ সেজে ক্যামেরার সামনে দাঁড়ান রুনা। দর্শকদের কাছেও পাচ্ছেন দারুণ প্রশংসা। এদিকে সম্প্রতি হইচইয়ে মুক্তি পেয়েছে রুনা খান অভিনীত ওয়েব সিরিজ ‘বোধ’। অমিতাভ রেজা চৌধুরী পরিচালিত এ সিরিজে দীপ্তি চরিত্রে অভিনয় করে দর্শকদের তাক লাগিয়ে দিয়েছেন তিনি।

প্রসঙ্গত, ২০০৯ সালে বিয়ে হয় রুনার। তখন অভিনেত্রীর বয়স ছিলো ৫৬ কেজি। পরের বছরই সন্তান রাজেশ্বরীর জন্ম। একসময় রুনার ওজন ৯৫ কেজিতে গিয়ে ঠেকে। সন্তান জন্মের এক বছর পর, মানে ২০১১ সাল থেকে ওজন কমানোর মিশন শুরু করেন রুনা। কিন্তু কোনোভাবেই পারছিলেন না, বরং একপর্যায়ে ওজন আরও বেড়ে হয় ১০৫ কেজি। ওজন কমাতে ধানমন্ডির একাধিক জিম ও প্রশিক্ষকের শরণাপন্ন হন তিনি। শুরু করেন সাঁতার। ভর্তি হন ইয়োগা ও অ্যারোবিকস ক্লাসেও। রুনা খানের ওজন এখন ৬৬ কেজি। এক বছর আগেও যাঁরা দেখেছেন, তারা এখনকার রুনা খানকে দেখে চমকে যান। এক বছরে ৩৯ কেজি ওজন কমিয়ে পুরোপুরি বদলে নিয়েছেন নিজেকে।

About admin

আমার পোস্ট নিয়ে কোন প্রকার প্রশ্ন বা মতামত থাকলে কমেন্ট করে জানাতে পারেন অথরা মেইল করতে পারেন admin@sottotv.com এই ঠিকানায়।