শাশুড়িকে পালিয়ে বিয়ে, ৯ বছর পর ধরা জামাই

নেত্রকোনার মোহনগঞ্জে শাশুড়িকে নিয়ে পালিয়ে বিয়ে করার ৯ বছর পর অভিযুক্ত জামাই আয়াতুল ইসলামকে (৩৩) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। নিজের স্ত্রীকে পালিয়ে বিয়ে করার অভিযোগে ৯ বছর আগে জামাইর নামে মামলা করেছিলেন শ্বশুর।

রোববার (২৪ জুলাই) রাত ১০টার দিকে আটপাড়া উপজেলার কৃষ্ণপুর এলাকা থেকে জামাইকে গ্রেফতার করা হয়।

আয়াতুল মোহনগঞ্জ উপজেলার সমাজসহিলদেও ইউনিয়নের মেদিপাথরখাটা গ্রামের শাহ জামালের ছেলে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, একই গ্রামের মতি মিয়ার মেয়েকে বিয়ে করেন আয়াতুল। এক পর্যায়ে শাশুড়ির সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক গড়ে ওঠে তার।

পরে শাশুড়িকে নিয়ে পালিয়ে সিলেটে গিয়ে বিয়ে করে কয়েক মাস তারা একত্রে বসবাস করেন। এ ঘটনায় শ্বশুর মতি মিয়া বাদি হয়ে আয়াতুলকে আসামি করে মোহনগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করেছিলেন ২০১১ সালে। পরে ২০১৩ সালে মামলার রায় ঘোষণা করেন আদালত। রায়ে তাকে এক বছর ছয় মাসের কারাদণ্ড দেন আদালত। সেই সঙ্গে দুই হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও দুই মাসের কারাদণ্ড দেন বিচারক। এরপর থেকেই আমাতুল পলাতক ছিলেন।

তবে বছর দেড়েক আগে মামলার বাদী মতি মিয়া মারা গেছেন বলে জানান এলাকাবাসী।

মোহনগঞ্জ থানার ওসি রফিকুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, সোমবার (২৫ জুলাই) সকালে তাকে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

About admin

আমার পোস্ট নিয়ে কোন প্রকার প্রশ্ন বা মতামত থাকলে কমেন্ট করে জানাতে পারেন অথরা মেইল করতে পারেন admin@sottotv.com এই ঠিকানায়।